ইউরোপের কোন দেশে যেতে কত টাকা লাগে 2022 | অস্ট্রেলিয়া যাওয়ার খরচ

ইউরোপের কোন দেশে যেতে কত টাকা লাগে 2022 | অস্ট্রেলিয়া যাওয়ার খরচ

ইউরোপের কোন দেশে যেতে কত টাকা লাগে

বাংলাদেশের মানুষ আমেরিকা, ইউরোপ, অস্ট্রেলিয়া, রোমানিয়া ইত্যাদি দেশে যেয়ে থাকেন। আমরা অনেকেই ইউরোপের দেশগুলোতে যেতে চাই। কিন্তু আমরা সেই দেশগুলো সম্পর্কে মোটামুটি ভাবে জানি না। আজকে আপনাদের সঙ্গে ইউরোপের কয়েকটি দেশ নিয়ে আলোচনা করব যেমন অস্ট্রেলিয়া, পোল্যান্ড, রোমানিয়া নিয়ে। এই দেশগুলোর কাজের ধরন, ভিসা খরচ, কোন দেশে কত টাকা আয়, সর্বনিম্ন বেতন ইত্যাদি সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা। আশা করি আপনাদের উপকারে আসবে ইনশাআল্লাহ।


মোবাইল দিয়ে ইনকাম করুন প্রতিদিন 500 টাকা করে বিকাশে পেমেন্ট


অস্ট্রিয়া যেতে কত খরচ হয়?


আমরা অনেকেই অস্ট্রেলিয়া যেতে চাই কিন্তু আমরা জানি না সে সম্পর্কে বিস্তারিত সবকিছু। আজকে আমরা আপনাদেরকে জানাবো অস্ট্রেলিয়া যেতে কত টাকা খরচ হয় সে সম্পর্কে বিস্তারিত। এখানে দুইটা ক্যাটাগরিতে ভিসা করা হয়। দুইটাই কাজ করার সুযোগ থাকে।


টেম্পোরারি : যেটাতে পিয়ারের অপশন থাকেনা প্রাথমিকভাবে আসবেন পরবর্তীতে আপনি চাইলে সেটা এপ্লাই করতে পারেন। টেম্পোরারি ভিসায় যদি কেবলমাত্র আপনি হন তাহলে আপনার খরচ পরবে। অ্যাপ্লিকেশন ফি 250 ডলার, ইন্সুরেন্স ফি 250 ডলার, স্কিন অ্যাসেসমেন্ট 2500 ডলার। এইগুলো সবকিছু মিলনের পরে যোগফল হয় 4000 সামথিং।

এক্সট্রা ফি মাইগ্রেশন এজেন্ট এর জন্য স্পন্সর প্রয়োজন হয় এর জন্য কোম্পানির খরচ হিসেবে 7700 ডলার লাগে। মোট বাংলা টাকা খরচ হয় 4 লাখ টাকার মতো প্রায়ই। এটা আপনার একার ক্ষেত্রে। আর যদি আপনার সঙ্গে স্ত্রী বা অন্য কেউ থাকে তাহলে আপনার খরচ হবে 5 লাখ 70, 80 হাজার টাকার মধ্যে প্রায়।


অস্ট্রিয়ায় সর্বনিম্ন বেতন।


আজকে আপনাদের সঙ্গে আলোচনা করব অস্ট্রেলিয়ার সর্বনিম্ন বেতন সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা। যদি আপনি ছাত্র হিসেবে জানি 20 ঘন্টা প্রতি সপ্তাহে কাজ করতে হবে। এবং প্রত্যেক ঘন্টার জন্য আপনি বারোশো টাকা পাবেন। অস্ট্রেলিয়া সর্বনিম্ন বেতন। যদি কেউ 10,,15 ডলার দেয় এটা ইললিগ্যাল ভাবে দেওয়া হবে।


পোল্যান্ড ওয়ার্ক পারমিট ভিসা।


পোল্যান্ড অনেকেরই স্বপ্নের দেশ। যারা পোল্যান্ডের যেতে চান তারা * সম্পর্কে বিস্তারিত জানবেন তারপরে সামনের দিকে অগ্রসর হবেন। শুধু পোল্যান্ডে না যেকোনো বাইরের দেশে যেতে হলে সে দেশ সম্পর্কে ভালোভাবে জানা আমাদের জরুরী। আজকে আপনাদের জানাব পোল্যান্ডের ওয়ার্ক পারমিট ভিসা সম্পর্কে বিস্তারিত। করোনার জন্য মধ্যে ওয়ার্ক পারমিট ভিসা বন্ধ করে রাখা হয়েছিল। কিছুদিন আগে ওয়ার্ক পারমিট ভিসা চালু করা হয়েছে। এখন চাইলে আপনারা সহজেই আবেদন করে পোল্যান্ডে চলে যেতে পারেন।


পোল্যান্ডে যেতে কত খরচ?


পোল্যান্ডে যেতে কত খরচ এই প্রশ্নটিই অনেকেই করে থাকেন আজকে তাদের জন্য উত্তরটি প্রয়োজন যারা পোল্যান্ডে যেতে চান।

পোল্যান্ডে যেতে হলে আপনার মোট খরচ হবে 7.5 থেকে 8 লক্ষ টাকার মতো প্রায়।


রোমানিয়া কাজের ভিসা।


ইউরোপ ভুক্ত দেশ রোমানিয়া। রোমানিয়া বর্তমানে বাংলাদেশের অনেকেই রয়েছে। রোমানিয়াতে আগে বাংলাদেশ থেকে লোক নেওয়া হতো যেমন 2020 সালে 365 জন লোক নিয়েছে, 2021 সালে বৃদ্ধি পেয়ে 471 জন হয়েছে। এবং এটা আস্তে আস্তে বৃদ্ধি পাচ্ছে। রোমানিয়া সম্পর্কে আজকে আপনাদের সঙ্গে বিস্তারিত আলোচনা করব।


প্রতিদিন $5 ডলার কত ইনকাম করুন কোন সাইট থেকে


রোমানিয়া ভিসা খরচ।


যারা রোমানিয়া যেতে চান তাদের রোমানিয়ার ভিসা খরচ সম্পর্কে জানা অতি জরুরী। আপনি যদি রোমানিয়াতে যেতে চান তাহলে আপনার 8 থেকে 9 লাখ টাকার মতো খরচ হবে। এটি একটি ধারণা দেওয়া হলো এর চেয়ে একটু কম বা বেশি হতে পারে।


রোমানিয়া ভিসা পেতে সময় লাগবে।


রোমানিয়ার ভিসা পেতে সময় লাগবে কত তা সম্পর্কে বিস্তারিত। যদি আপনি জব ভিসা পেতে চান তাহলে আপনার জন্য তিন মাস থেকে চার মাস সময় লাগতে পারে।


রোমানিয়া কাজের ধরন যোগ্যতা এবং বেতন।


আপনি রোমানিয়ায় বেশ কয়েক রকম কাজ করতে পারবেন যেমন কারখানার শ্রমিক, কাঠমিস্ত্রি, হোটেল জব ইত্যাদি। দেশে যারা প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত তাদের জন্য রোমানিয়া ওয়ার্ক পারমিট বিছানায় খুব সহজেই তাদের নিজের যোগ্যতা অনুযায়ী বেতন পাই বাংলাদেশের প্রায় 30 হাজার থেকে 5 লক্ষ টাকা। যোগ্যতা অনুযায়ী পেয়ে থাকেন।



রোমানিয়াতে ড্রাইভিং কাজের নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি


বর্তমানে রোমানিয়াতে ব্যাপকভাবে ডায়েটিং কাজের কোটি লোক নিয়োগ দিচ্ছে বিভিন্ন দেশ থেকে। তাই যারা বাংলাদেশ থেকে এবং বাংলাদেশের বাহির থেকে যাওয়ার চিন্তা-ভাবনা করছেন রোমানিয়াতে গেলে এই কাজটি খুব সহজেই পেয়ে যাবেন আপনি সেক্ষেত্রে আপনার। ইন্টারন্যাশনাল ড্রাইভিং ভিসা থাকা লাগবে আপনি বাংলাদেশে সহজে কোন দেশের ডাইভিং করতে পারবেন এমন একটি আপনার ড্রাইভিং লাইসেন্স থাকা লাগবে তাহলে আপনি রোমানিয়াতে ডায়ালিং এর কাজ করতে পারবেন। আপনি ডাইভিং এর কাজ করে মাসে দুই থেকে তিন লক্ষ টাকা পর্যন্ত ইনকাম করতে পারবেন রোমানিয়াতে। রোমানিয়া জব সাইট গুলোতে খুব বেশিরভাগই বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করে থাকে ড্রাইভিং এর জন্য



রোমানিয়ায় হোটেল বয় এর কাজ


বর্তমানে রোমানিয়ায় বাংলাদেশ থেকে বিভিন্ন ভাবে রোমানিয়ায় পাড়ি জমাচ্ছে। তাছাড়াও বাংলাদেশের বাহিরে যারা কাজ করে তারা সেখান থেকে রোমানিয়া তে বিভিন্নভাবে যাচ্ছে কাজের জন্য। এবং তারা অলরেডি কাজ করছে এবং দেশে টাকা পাঠাচ্ছে এবং নিজে স্বাবলম্বী হচ্ছে। কারণ এশিয়া মহাদেশের মধ্যে কাজ করলে অনেক অংশই টাকা কম পাওয়া যায় সেই হিসাবে যদি আপনি ইউরোপের বিভিন্ন কান্ট্রি তে ঢুকতে পারেন তাহলে দ্বিগুণ হারে টাকা পাবেন কাজ করলে। এজন্য রোমানিয়া সহ অস্ট্রেলিয়া বিভিন্ন ইউরোপ কান্ট্রির ভিতর শ্রমিকরা ঢুকে পড়ছে। তাই আপনিও যদি রোমানিয়ায় যেতে চান তাহলে এই কাজটি অনায়াসে করতে পারবেন


বর্তমানে রোমানিয়ায় বিভিন্ন কাজের ভিসা রয়েছে সেক্ষেত্রে আপনি রোমানিয়ায় হোটেল বয়ের কাজ করে ভালো পরিমাণ ইনকাম করতে পারবেন। রোমানিয়ায় অন্যান্য কাজ করতে হলে আপনার পূর্ব অভিজ্ঞতা থাকা লাগবে। কিন্তু হোটেলবয় কাজগুলো আপনি খুব সহজেই করতে পারবেন এখানে কোন পূর্ব অভিজ্ঞতা থাকা লাগবে না। এখানে খাবার পরিবেশন অথবা হোটেল ক্লিনার সহ আদার্স আজগড়া করা লাগবে সেই হিসাবে আপনাকে তারা বুঝিয়ে দিবে এবং আপনি খুব সহজে সেগুলো বুঝতে পারবেন। রোমানিয়ায় হোটেল বয়ের কাজ গুলা করতে আপনার কোন পূর্ব অভিজ্ঞতা থাকা লাগবে না এইজন্য আপনার জন্য সহজ হবে


আরো পড়তে ভিজিট করুন:

দুবাই কাজের ভিসা ২০২২ | দুবাই ভিসা ২০২২ আজকের খবর

কানাডা জব ভিসা 2022  | কানাডা ওয়ার্ক পারমিট ভিসা

রোমানিয়া কোন কাজের চাহিদা বেশি?


Next Post Previous Post
No Comment
Add Comment
comment url